Sunday, February 5, 2023

মন বসছে না মন্দার বাজারেও! 2023-এ চাকরি বদলের ভাবনা বেশিরভাগ দেশবাসীর

- Advertisement -spot_img
- Advertisement -spot_img


শীঘ্রই চাকরি বদলাতে চান? 2023 সালেই নতুন পেশায় যাওয়ার লক্ষ্য নিয়েছেন? তাহলে আপনি একা নন। কারণ এই তালিকায় রয়েছে অনেকেই। সমীক্ষা অনুসারে, প্রতি 5 জনের মধ্যে 4 জন ভারতীয়ই 2023 সালে চাকরি বদলাতে চান। আকর্ষণীয় বেতন, কর্মজীবনের সঙ্গে ব্যক্তিগত জীবনের ভারসাম্য সহ একাধিক বিষয়ের জন্যেই চলতি বছরে অধিকাংশ ভারতীয় কর্মীই কর্মস্থল পরিবর্তন করতে চান।

তবে বিশ্ব জুড়ে আর্থিক মন্দাভাবের মধ্যেই যেখানে একের পর এক কোম্পানিতে কর্মী ছাঁটাই চলছে সেখানে কীভাবে চাকরি পরিবর্তনের কথা ভাবছেন ভারতীয়রা? ইতিমধ্যে নামী-দামি কোম্পানি থেকে চাকরি হারিয়েছেন আইআইটি, এনটিআই-র কৃতি স্নাতকরাও। আসলে চাকরি বদল করতে চাইলে বাজারে চাকরির সন্ধানও তো থাকা চাই। সেক্ষেত্রে লিঙ্কেডিনের তথ্য অনুসারে, 2021 সালের ডিসেম্বরের তুলনায় 2022 সালের ডিসেম্বরে ভারতে কর্মী নিয়োগ 23 শতাংশ কমে গিয়েছে। কিন্তু তাও সাম্প্রতিকালে একাধিক ইস্যু সহ নিজেদের চাহিদা পূরণ এবং নিজের দক্ষতার উপরে ভরসা রেখেই চাকরি বদলাতে চান প্রায় 80 শতাংশ ভারতীয় কর্মী।

Amazon layoff: অ্যামাজন থেকে ছাঁটাইয়ের পরে লিঙ্কেডিনে পোস্ট IIT, NIT স্নাতকদের, মিলল নতুন চাকরিও
চাকরির বাজারের অবস্থা যাই হোক না কেন নতুন বছরে কর্মজীবন নিয়ে আশাবাদী অধিকাংশ ভারতীয় কর্মী। বিশ্বের বৃহত্তম পেশাদার নেটওয়ার্কের সর্বশেষ গবেষণা প্রকাশ করেছে যে ভারতীয় কর্মীরা অর্থনৈতিক অনিশ্চয়তার মধ্যেও স্থিতিশীল রয়েছেন বলে মনে করা হচ্ছে। যেখানে 2023 সালে 5 জনের মধ্যে 4 জন অর্থাৎ 80 শতাংশ পেশাদার চাকরি পরিবর্তন করার কথা ভেবেছেন। ।

এপ্রসঙ্গে লিঙ্কেডিন কেরিয়ার বিশেষজ্ঞ এবং সম্পাদকীয় প্রধান নিরজিতা বন্দ্যাপাধ্যায় জানিয়েছেন যে বর্তমানে কঠিন অর্থনৈতিক অবস্থা সত্ত্বেও, ভারতীয় কর্মীরা তাদের নিজস্ব ক্ষমতার উপর নির্ভর করছেন। মহামারীর সময়ে ভারতীয় কর্মীরা খরচ বাঁচাতে পেরেছেন এবং আগামী বছরে নতুন কাজে যোগদান করতেও প্রস্তুত।

IT Jobs in Kolkata: কলকাতায় আইটি সেক্টরে সুখবর, 6 মাসে সেক্টর V- এ 20 হাজার চাকরি
আসলে মূল্যবৃদ্ধি এবং আর্থিক নিরাপত্তাও এই চাকরি বদলের পরিকল্পনার অন্যতম কারণ। বর্তমান পরিস্থিতিতে জীবনযাত্রার মান বজায় রাখতে স্বাভাবিকভাবে কর্মীরা আরও বেশি বেতন প্রত্যাশা করেন। আবার অনেকের জীবনে ‘ওয়ার্ক-লাইফ ব্যালেন্স’ অনেক বেশি গুরুত্ব রয়েছে।

সমীক্ষায় আরও উল্লেখ করা হয়েছে যে সামনে অনিশ্চিত অর্থনৈতিক সময় থাকা সত্ত্বেও, পেশাদারদের তাদের দক্ষতায় নিজেদের উন্নতির জন্য দীর্ঘমেয়াদি কেরিয়ারে ঝোঁক রয়েছে।



Source link

- Advertisement -spot_img

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Latest news
- Advertisement -spot_img
Related news
- Advertisement -spot_img